৫ বছরের কারাদ,ণ্ড হতে পারে পরীমনির

৫ বছরের কারাদ,ণ্ড হতে পারে পরীমনির

ঢালিউডের আলোচিত নায়িকা পরীমনিকে আটকের পর তার নামে মাদকদ্রব্য আইনে মামলা করেছে র‍্যাব। এতে আসামি করা হয়েছে আরও ৩ জনকে। অভিযোগ প্রমাণ হলে এসব মামলায় পরীমনির সর্বোচ্চ ৫ বছর পর্যন্ত কারাদণ্ড ও জরিমানা হতে পারে বলে জানিয়েছেন আইনজীবীরা। এখন পর্যন্ত পরীমনির বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা হয়েছে ২টি।

২ মামলাতেই সর্বোচ্চ সাজার উল্লেখ আছে ৫ বছর। তবে পরীর আইনজীবীরা মামলা দুটিকে ভিত্তিহীন বলে উল্লেখ করছেন। তাদের বিশ্বাস কোনো সাজাই হবে না তার। বৃহস্পতিবার (৫ আগস্ট) আদালতে তোলার পর পরীমনিকে ৪ দিনের রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদের আদেশ দিয়েছেন বিচারক। তবে এটিই শেষ নয়; তদন্ত করে পুলিশ প্রতিবেদন দিলে তার গ্রহণযোগ্যতার ওপর শুনানি হবে।

আর অভিযোগ গঠন হলে চলবে বিচারকাজ। বুধবার(৪ আগস্ট) বাসায় অভিযান চালিয়ে আটকের পর বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় রাজধানীর বনানী থানায় পরীমনি ও প্রযোজক-পরিচালক নজরুল ইসলাম রাজের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইন ২০১৮ এর ৩৬ এর ১০ (ক) ও ২৪ (খ) ধারায়।

চিত্রনায়িকা পরীমনি ও প্রযোজক-পরিচালক নজরুল ইসলাম রাজকে আটকের বিষয়ে ব্রিফিংয়ে বিস্তারিত জানানোর পর বিকেলে বনানী থানায় নিয়ে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানেই পুলিশের কাছে তাদের হস্তান্তর করা হয়। বনানী থানা থেকেই পরীমনি ও রাজকে আদালতে নিয়ে যায় পুলিশ।এর আগে র‍্যাব কার্যালয়ে পরীমনি ও রাজকে আটকের বিষয়ে বিস্তারিত গণমাধ্যমে তুলে ধরে র‍্যাব।

শেয়ার করুন