শত শত নারীর অন্তর্বাস চুরি করে ধরা পড়লেন তিনি

শত শত নারীর অন্তর্বাস চুরি করে ধরা পড়লেন তিনি

প্রায় ৭শ’রও বেশি অন্তর্বাস চুরির দায়ে জাপানে গ্রেপ্তার করা হয়েছে ৫৬ বছরের এক ব্যাক্তিকে। গ্রেপ্তার ব্যক্তির নাম তেৎসুও উরাতা। তার বিরুদ্ধে অভিযোগ, নারীদের শত শত অন্তর্বাস চুরি করে নিজের বাসায় জমা করেছেন। স্থানীয় সংবাদমাধ্যম জাপান টুডে ও ইনসাইডারের প্রকাশিত প্রতিবেদন সূত্রে জানা গেছে, জাপানে কয়েনের মাধ্যমে পরিচালিত একটি লন্ড্রি থেকে ওই অন্তর্বাসগুলো চুরি করেন উরাতা। দীর্ঘ দিন ধরে চুরি করা অন্তর্বাসগুলো তিনি নিজের বাসায় জমা করেন।

এই ঘটনাটি প্রথম প্রকাশ করেন ২১ বছর বয়সী এক তরুণী। তিনি ছয়টি অন্তর্বাস চুরির অভিযোগ তোলার পর উতারার বাসায় অভিযান চালায় পুলিশ। পরে সেখান থেকে ৭৩০টি অন্তর্বাস (বেশিরভাগ প্যান্টি) উদ্ধার করা হয়। পুলিশের শেয়ার করা ছবিতে দেখা যায়, অভিযানের পর জব্দ করা অন্তর্বাসগুলো ঘরের মেঝেতে ছড়িয়ে রাখা হয়েছে। তবে এতগুলো অন্তর্বাস ওই ব্যক্তি কেন চুরি করলেন, তা জানা যায়নি।

বেপ্পু সিটির পুলিশ বিভাগের একজন মুখপাত্র অ্যাবেমা টিভি’কে বলেন, সম্প্রতি তারা একসঙ্গে এতগুলো অন্তর্বাস বাজেয়াপ্ত করেনি। অন্তর্বাস চুরির অভিযোগ স্বীকার করার পর উরাতাকে পুলিশ হেফাজতে রাখা হয়েছে।

জানা গেছে, বিগত কয়েক বছর জাপানে নারীর অন্তর্বাস চুরি যাওয়ার ঘটনা বৃদ্ধি পেয়েছে। গত মার্চে টাকাহিরো কুবো নামে এক ব্যক্তি নারীদের অন্তর্বাস চুরির দায়ে গ্রেপ্তার হন। তার কাছে ৪২৫টি অন্তর্বাস পাওয়া যায়। শেষবার অন্তর্বাস চুরির সময় ভিডিও ধারণ করেন এক প্রতিবেশী। পরে বিষয়টি প্রকাশ্যে আসে। এ ছাড়া ২০১৯ সালে একই অপরাধে টোরু আডাচি নামে ৪০ বছর বয়সী এক ব্যক্তি গ্রেপ্তার হন।

শেয়ার করুন