বুর্জ খলিফার মাথায় উঠলেন বিমানবালা

বুর্জ খলিফার মাথায় উঠলেন বিমানবালা

সম্প্রতি বিশ্বজুড়ে আলোচনার সৃষ্টি করেছে বিশ্বের অন্যতম সেরা বিমানসংস্থা এমিরেটস এয়ারলাইন্সের একটি বিজ্ঞাপন। যুক্তরাজ্য ভ্রমণে এমিরেটস বিমান সংস্থাকে সম্প্রতি লাল তালিকা থেকে বাদ দেয়া হয়েছে। তা নিয়ে একটি বিজ্ঞাপন তৈরি করেছে সংস্থাটি। নিকোল স্মিথ-লুদভিক নামের এক নারী বিমানবালাকে দুবাইয়ের বুর্জ খলিফার মাথায় তুলে ভিডিও শুট করা হয়েছে।

বিজ্ঞাপনের ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, বিশ্বের সর্বোচ্চ ভবন বুর্জ খলিফার একেবারে মাথায় ইউনিফর্ম পরে বসে রয়েছেন একজন বিমানবালা।এমনকি সেই বিজ্ঞাপনের পেছনের দৃশ্য অর্থাৎ শ্যুটিংয়ের দৃশ্যও প্রকাশ করা হয়েছে। এরপরই সেটি অনলাইনে ভাইরাল হয়। অনেকে তো আতঙ্কে-শিহরণে বিস্মিত। কারণ ভিডিওর শেষ দৃশ্যে বুর্জ খলিফার চূড়া থেকে পুরো দুবাই শহর দেখা গেছে। বিশ্বের সুউচ্চতম ভবনের একেবারে চূড়ায় বসে রয়েছেন বিমানবালা!

মূল বিজ্ঞাপন চিত্রে দেখা যাচ্ছে, এমিরেটসের এক বিমানবালা কয়েকটি প্ল্যাকার্ড ধরে দাঁড়িয়ে আছেন আকাশ ছোঁয়া বুর্জ খালিফার মাথার ওপর। সেসব প্ল্যাকার্ডের মাধ্যমে তিনি যাত্রীদের এমিরেটস এয়ারলাইন্সের বিমানে ভ্রমণের আবেদন জানাচ্ছেন। অনলাইনে এই বিজ্ঞাপন তথা ভিডিও নিয়ে উৎসাহ প্রকাশ করা হলেও অনেকে এটিকে ‘কাণ্ডজ্ঞানহীনতার পরিচয়’ উল্লেখ করে এমিরেটস এয়ারলাইন্সের সমালোচনাও করেছেন। যদিও প্রাথমিকভাবে অনেকে এই ভিডিওটি ‘ফেক’ বা মিথ্যা বলে দাবি করেছিলেন। তাদের দাবি, বুর্জ খলিফার শীর্ষে উঠে নাকি শ্যুটিংই করা হয়নি।

তবে ভাইরাল হওয়া শ্যুটিংয়ের ‘বিহাইন্ড দ্য সিন’ ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে – ‘টপ অব দ্য ওয়ার্ল্ড’ বুর্জ খলিফার শীর্ষে এমিরেটসের বিমানবালার ইউনিফর্ম পরে দাঁড়িয়ে রয়েছেন এক মডেল। পায়ে রয়েছে হাই হিলস। বুর্জ খলিফার চূড়ায় কোনো রকমে দু’টি পা রেখে দাঁড়িয়ে রয়েছেন তিনি। তার পেছনে রয়েছে গোটা দুবাই।

অনেকের বক্তব্য, বিজ্ঞাপনের মূল উদ্দেশ্যই ছিল দর্শকের মনোযোগ আকর্ষণ, সেটিও একেবারে অনন্য কোনো পন্থায়। আর সেটি যে এমিরেটস খুব ভালোভাবেই করেছে তা ভিডিও ভাইরাল হওয়াতেই স্পষ্ট হয়ে গেছে। সংবাদমাধ্যমগুলো বলছে, বিজ্ঞাপনের সাহসী ওই মডেলের নাম নিকোল স্মিথ লুডভিক। তিনি একজন পেশাদার স্কাই-ডাইভার। এসময় তার সঙ্গে মাত্র কয়েকজন অবস্থান করছিলেন। এছাড়া এই বিজ্ঞাপনটি তৈরির সময় সর্বোচ্চ নিরাপত্তামূলক ব্যবস্থা নিশ্চিত করা হয়েছিল।

শেয়ার করুন