বিমানবন্দর থেকে সরাসরি বাড়ি নিয়ে যেতে চালু হয়েছে ‘প্রবাসীর ট্যাক্সি’

বিমানবন্দর থেকে সরাসরি বাড়ি নিয়ে যেতে চালু হয়েছে ‘প্রবাসীর ট্যাক্সি’

বিদেশের মাটিতে সহায়সম্বল শেষ করে দেশে ফিরে এসে হ’তাশা’য় ডুবে যান অনেক প্রবাসী কর্মী। হাতে কাজ না থাকায় আর মাথার ওপর ঋণের বো’ঝা সব মিলিয়ে জীবন দুর্বিষহ হয়ে ওঠে তাদের। এমন চি’ন্তা থেকেই নতুন একটি কর্মসংস্থানের পথ তৈরি হয়েছে দেশে, যার নাম দেওয়া হয়েছে ‘প্রবাসীর ট্যাক্সি’।

এই ট্যাক্সির মাধ্যমে কমমূল্যে বিমানবন্দর থেকে যাতায়াতের সুবিধা পাবেন প্রবাসীরা। আর এর সঙ্গে যু’ক্ত থাকবে বিদেশ ফেরত দ’ক্ষ চালকরাই। শুধু বিমানবন্দর থেকে নয়, এই উদ্যোগের সঙ্গে যু’ক্ত হয়ে সারাদেশে ভাড়ায়ও গাড়ি চালাতে পারবেন তারা। এই উদ্যোগের মূল কর্তা ব্র্যাকের মাইগ্রেশন বিভাগের তথ্য কর্মকর্তা আল আমিন নয়ন।

তিনি বলেন, আমাদের কাছে বিদেশফেরত দ’ক্ষ চালকদের তালিকা আছে যারা দেশে এসেছে কিন্তু বেকার। তাদের নিজেদের দক্ষ’তা কাজে লাগানোর সুযোগ নেই। তাদের নিয়েই আমরা শুরু করেছি। মূলত দুটি কারণে এই উদ্যোগটি গ্রহণ করা হয়েছে। একটি হচ্ছে, বিদেশ ফেরত হতা’শাগ্র’স্তদের কর্মসংস্থান তৈরি করা। দ্বিতীয়টি, বিমানবন্দরে প্রবাসীদের বাড়ি ফেরা নিয়ে অতিরি’ক্ত দামে ট্যাক্সি বা গাড়ির ব্যবসার সি’ন্ডিকে’টের হ’য়রা’নি বন্ধ করা।

প্রতি আয়ের ৩ শতাংশ পাবে উদ্যো’ক্তারা এবং ২ শতাংশ যাবে ক্ষ’তিগ্র’স্ত প্রবাসীদের কল্যাণ তহবিলে। একটি নম্বরে কল দিয়েই পাওয়া যাবে এই সেবা। প্রবাসীর ট্যাক্সি অ্যাপের মাধ্যমে পরিচালনা করা হবে জানিয়ে আল আমিন নয়ন বলেন, এই অ্যাপের মাধ্যমে প্রবাসীর ট্যাক্সি পরিচালনা করা হবে। প্রবাস ফেরত ব্যাক্তিরাই এখানে কাজ করবে এবং প্রবাস ফেরতদেরকেই এয়ারপোর্ট থেকে নিয়ে তার গন্তব্যে যাবে। অ্যাপ তৈরির কাজ এখনও চলমান রয়েছে বলে জানান তিনি।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *