ফেনীতে ৭ পা বিশিষ্ট বাছুরের জন্ম

ফেনীতে ৭ পা বিশিষ্ট বাছুরের জন্ম

ফেনীর দাগনভূঞার সিন্দুরপুর ইউনিয়নের চন্দ্রপুর মধ্যপাড়া গ্রামে একটি গাভী থেকে ৭ পা বিশিষ্ট একটি বাছুরের জন্ম হয়েছে। গত বৃহস্পতিবার ওই গ্রামের বাসিন্দা রূপধন মিয়ার গাভীটি ওই বাছুরের জন্ম দেয়। এমন খবরে বিভিন্ন গ্রামের মানুষ বাছুরটি দেখতে প্রতিদিন ভিড় জমাচ্ছেন।

বাছুরের মালিক রূপধন মিয়া জানান, গত ১০ বছর যাবৎ তিনি গাভীটি পালন করছেন। এটি গাভীটির চতুর্থ বাছুর। জন্মের পর দেখতে পাওয়া যায় চারটি পা ছাড়াও পিঠের ওপরে আরও তিনটি পা। বিষয়টি দেখে স্থানীয় উপজেলা পশু হাসপাতালের ডাক্তারের সঙ্গে যোগাযোগ করলে তিনি অপারেশনের মাধ্যমে তিনটি পা অপসারণ করা যাবে বলে জানান।

তিনি বলেন, জন্মের পর থেকে বাছুরটি দুধ পান করছে না। তবে আলাদাভাবে তাকে দুধ পান করানোর জন্য চেষ্টা করা হচ্ছে। সিন্দুরপুর ইউপি চেয়ারম্যান নুরুন্নবী বলেন, ৭ পা বিশিষ্ট বাছুরের জন্মের খবরে প্রতিদিন ওই বাড়িতে দর্শনার্থীরা ভিড় করছে।

উপজেলা ভেটেরিনারি সার্জন ডাক্তার মো. তারেক মাহমুদ জানান, বিরল আকৃতির এমন বাছুরের জন্ম নেওয়ার পর উপজেলা প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের একজন কর্মী বাছুরটি সম্পর্কে খোঁজখবর নিয়েছেন।

তিনি আমাকে এ বিষয়ে অবহিত করেছেন। এটি একটি জন্মগত ত্রুটি। শারীরিকভাবে গরুর বাছুরটি একটু সুস্থ হলে অপারেশন এর মাধ্যমে অতিরিক্ত তিনটি পা সরিয়ে ফেলা যাবে। অপারেশন না করা হলেও তার মূল চারটি পায়ের কোন সমস্যা হবে না। অতিরিক্ত তিনটি পায় এক সময়ে অকেজো হয়ে যাবে।

শেয়ার করুন