নতুন বরকে পাশে বসিয়ে গাড়ি চালিয়ে গেলেন কনে!

ঘোড়ার পিঠে চে’পে একজন রাজকুমার একদিন রাজকন্যাকে নিয়ে যাবে এক ফুলের রাজ্যে। সেখানে শুধু ফল-ফুল আর ভালোবাসায় তারা বাস করবে।এমনই স্বপ্ন থাকে প্রায় প্রতিটি মেয়ের।

তবে দিন পাল্টেছে আর সেই প্রমাণই পাওয়া গেল ভারতের এক বিয়েতে। এ বিয়েতে প্রচলিত ধারণা ভে’ঙে বউ নিজেই গাড়ি চালিয়ে বরকে পাশে বসিয়ে নিয়ে গেলেন শ্বশুরবাড়িতে। সাধারণত বিয়ের পর বৌ নিয়ে ঘরে ফেরেন ছেলেরাই। এই ঘটনা চ’মকে দিয়েছে সবাইকে। বিয়ের বর সৌগত উপাধ্যায় আর কনে স্নেহা সিং ।

বরাবরই একটু অন্যরকম করে ভাবতে চেয়েছিলেন স্নেহা। লোকে কী ভাববে সেটা বড় কথা নয়, নিজের যাতে ভাল লাগবে সেটাই করবেন ঠিক করেছিলেন। যেমন ভাবা তেমন কাজ। বরাবরই নিজে গাড়ি চালিয়ে শ্বশুরবাড়ি যাবেন ভেবেছিলেন। স্বামী, সৌগত তাকে পুরোপুরি সাপোর্ট করেছিলেন এ কাজে।

নিজেই গাড়ি ড্রাইভ করে বরকে নিয়ে শ্বশুরবাড়ি রওনা দিলেন নতুন বউ। এটা দেখে বিয়েতে আসা আত্মীয়রা দারুণ মজা পেয়েছেন। সবাই উৎসাহ দিয়েছেন এমন উদ্যোগকে।

অনেকেই বলেছেন, আজকাল মেয়েরা শুধু গাড়ি না প্লেনও চালায়। প্রধানমন্ত্রী-প্রেসিডেন্ট হয়ে দেশও চালান। এভাবে গাড়ি চালিয়ে শ্বশুড় বাড়িতে নতুন বউ আসার দৃশ্য ভিডিও করে সোশ্যাল মিডিয়া দিয়েছেন সঙ্গে থাকা কেউ কেউ। আর এই ভিডিও দেখে বর-কনেকে নতুন জীবনের শুভেচ্ছা জানাচ্ছে নেটবাসীরা।

এই বিয়ের মতোই সংসারে বা দেশের প্রয়োজনে এভাবেই নারী-পুরুষ সমানতালে দায়িত্ব পালন করবে ও সম্মানের সঙ্গে সমাজে সহাবস্থান করবে বলেও আশা করেন সবাই।

শেয়ার করুন