দ্বিতীয় স্বামীকে কিছু না বলার অনুরোধ করেছিলেন পরীমনি (ভিডিও)

দ্বিতীয় স্বামীকে কিছু না বলার অনুরোধ করেছিলেন পরীমনি (ভিডিও)

বিপুল পরিমাণ মাদকসহ নিজ বাসা থেকে বুধবার গ্রেফতার হয়েছেন ঢালিউডের গ্ল্যামারগার্ল বর্তমান সময়ের আলোচিত চিত্রনায়িকা শামসুন্নাহার স্মৃতি। এর পর মুখ খুলেছেন তার দ্বিতীয় স্বামী যশোরের কেশবপুরের ফেরদৌস কবীর সৌরভ। এর পর পরীমনি বিয়ে করলেও সৌরভের সঙ্গে বিচ্ছেদ হয়নি এখনো।

বুধবার রাতে সৌরভ যুগান্তরকে জানান, তার কাছে কয়েকদিন আগে ফোন দিয়েছিলেন পরীমনি। ফোনে পরীমনি বলেন ‘তিনি যেন কারও কাছে কিছু না বলেন।’ তখন ঢাকা বোট ক্লাবে গিয়ে ঝামেলায় পড়েছিলেন পরীমনি।

পরীমনির সঙ্গে যোগাযোগ আছে কি না জানতে চাইলে তিনি বলেন, বিশেষ প্রয়োজনে ওর (পরীমনি) যদি দরকার হয় তাহলে ফোন দেয়।

সৌরভের বাড়ি যশোরের কেশবপুর পৌরশহরের অফিস পাড়ায়। এক আবেগঘন সাক্ষাৎকারে তিনি পরীমনির সঙ্গে তার বিয়ে সংসার এবং বিচ্ছেদের কথা জানান। তার ভাষায় ‘বেপরোয়া জীবন বেছে নেয়ার কারণে তারা ২০১৪ সাল থেকে পৃথক বসবাস করে আসছেন।’ এখনও তাদের আনুষ্ঠানিক আইনগত তালাক হয়নি।

পরীমনি ১৯৯২ সালের ২৪ অক্টোবর খুলনা বিভাগের সাতক্ষীরায় শামসুন্নাহার স্মৃতি হিসাবে জন্মগ্রহণ করেন। ছোটবেলায় মা সালমা সুলতানাকে ও বাবাকে হারানোর পর পরীমনি বড় হয়েছেন পিরোজপুরে নানা শামসুল হক গাজীর কাছে। সেখান থেকেই তিনি তার মাধ্যমিক এবং উচ্চ মাধ্যমিক শেষ করেন। সাতক্ষীরা সরকারি কলেজে বাংলা বিভাগে ব্যাচেলর অফ আর্টস (বিএ) (সম্মান) এ পড়াকালীন ২০১১ সালে ঢাকায় চলে আসেন এবং বুলবুল ললিতকলা একাডেমি (বাফা)য় নাচ শেখেন।

এদিকে সৌরভের দাদা বাড়ি ঝালকাঠি জেলার কাঁঠালিয়া থানার মরিচবুনিয়া গ্রামে। ২০১১ সালে এসএসসি পরীক্ষার পর দাদাবাড়ি গিয়ে পরিচয় হয় তখনকার শামসুর নাহার স্মৃতির সঙ্গে পরিচয় হয়। তখন নানা বাড়ি থাকতেন আজকের পরীমনি। এরপর ২০১২ সালের ২৮ এপ্রিল তারা কেশবপুর কাজী অফিসে বিয়ে করেন।

বুধবার বিপুল পরিমাণ বিদেশি মদ ও মাদকসহ চিত্রনায়িকা পরীমনিকে আটক করে র‌্যাব। এরপর বৃহস্পতিবার তাকে গ্রেফতার দেখানো হয়। মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে দায়ের করা মামলায় আদালত ইতোমধ্যে তার চার দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন।

শেয়ার করুন