অবশেষে কারাগার থেকে মুক্তি পেলেন পরীমনি

অবশেষে কারাগার থেকে মুক্তি পেলেন পরীমনি

মাদক মামলায় গ্রেফতারের পর তিন দফা রিমান্ড শেষে ও প্রায় একমাস পর চিত্রনায়িকা পরীমনি কাশিমপুর কেন্দ্রীয় মহিলা কারাগার থেকে মুক্তি পেয়েছেন। বুধবার (০১ সেপ্টেম্বর) সকালে তিনি মুক্তি পান। এর আগে মঙ্গলবার সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত পরীমনির জামিনের কাগজপত্র কারাগারে না পৌঁছানোয় সেদিন তার মুক্তি মেলেনি।

পরীমনিকে বরণ করে নিতে কারাগারের সামনে অপেক্ষা করছেন আইনজীবী নীলাঞ্জনা রিফাত সুরভী, খালু জসিমউদ্দিনসহ স্বজনরা। সকাল সোয়া ৮টার দিকে পরীমনির পাঁচ থেকে ছয়জন আত্মীয় ও তার আইনজীবী কারাগারের সামনে আসেন। ওই সময় তার আইনজীবী সুরভী বলেন, ‘আমরা ও তার স্বজনরা কারাগারের সামনে এসেছি। পরীমনির বিষয়ে কিছুক্ষণ পরে কথা বলব।’

এর আগে গতকাল মঙ্গলবার (৩১ আগস্ট) দুপুরে ঢাকা মহানগর দায়রা জজ কেএম ইমরুল কায়েশের আদালতে তার জামিন দেওয়া হয়। জামিন শুনানিতে পরীমনির আইনজীবী মজিবুর রহমান বলেন, ‘আসামিকে তিন দফায় রিমান্ডে নেয়া হয়েছে, কিন্তু অভিযোগ তদন্তে অগ্রগতি নেই।

আসামি একজন অসুস্থ নারী। তিনি একজন স্বনামধন্য অভিনেত্রী। বিভিন্ন পরিচালকের সঙ্গে সিনেমার চুক্তি আছে৷ যার মধ্যে সরকারি অর্থায়নে নির্মিতব্য প্রীতিলতা সিনেমাও রয়েছে। কারাগারে থাকায় তিনি সেসব চুক্তি পূরণ করতে পারছেন না। তাই সার্বিক বিবেচনায় জামিন চাইছি।

শুনানি শেষে বিচারক ৫০ হাজার টাকা বন্ডে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল পর্যন্ত সময়ের জন্য তাকে জামিনে মুক্তি দেয়ার আদেশ দেন। আলোচিত এই অভিনেত্রী ৪ আগস্ট গ্রেপ্তার হওয়ার পর তিন দফা রিমান্ড শেষে গাজীপুরের কাশিমপুর কেন্দ্রীয় কারাগারে ছিলেন।

শেয়ার করুন