‘অনেকদিন পর বাসায়’ ফিরে কী করলেন সোহান?

‘অনেকদিন পর বাসায়’ ফিরে কী করলেন সোহান?

‘নেন ভাই নেন, তাড়াতাড়ি শেষ করেন ভাই, অনেকদিন পর বাসায় যাব।’ অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে সোমবার টি-টোয়েন্টি সিরিজের শেষ ম্যাচে উইকেটরক্ষক নুরুল হাসান সোহানের এ কথা ভাইরাল হয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়।

সেদিন ১৪তম ওভারটি করছিলেন সাকিব আল হাসান। প্রথম বলেই নাথান এলিসের উইকেট তুলে নেন সাকিব। এরপর ব্যাট হাতে নামেন অ্যাডাম জাম্পা।

অস্ট্রেলিয়ার রান তখন ৯ উইকেটে ৫৮। অর্থাৎ জয়ের পেতে দরকার আর মাত্র একটি উইকেট। হাতে যদিও আরো ৬টি ওভার আছে কিন্তু টেলএন্ডার জাম্পা সাকিবের বলে আর কতটা সময় টিকে থাকার ক্ষমতা রাখেন!

জয় এখন সময়ের ব্যাপার মাত্র। তখন উইকেটের পেছন থেকে সোহান তাড়া দেন সাকিবকে। বলেন, ‘নেন ভাই নেন, তাড়াতাড়ি শেষ করেন ভাই, অনেকদিন পর বাসায় যাব।’

স্ট্যাম্পের মাইকে স্পষ্টতই শোনা গেলো নুরুল হাসান সোহানের কণ্ঠ। বোঝাই যাচ্ছিল বাড়ি ফেরার তর সইছে না সোহানের। কথাটা শুধু সোহানের নয়। দলের সবারই।

খেলার মাঠে সাকিব আল হাসানের উদ্দেশে এমন কথা বলে ভাইরাল হওয়ার পর সোহান ঠিক কখন বাসায় গিয়েছিলেন, কী করলেন প্রায় তিন মাস পর বাসায় ফিরে?

বিবিসি বাংলাকে সোহান জানান, সোমবার রাতে শেষ পর্যন্ত আর বাসায় ফেরা হয়নি তার। বাংলাদেশ টিম হোটেল ছেড়েছেন মঙ্গলবার। বাসায় ফিরেই একজন অসুস্থ স্বজনকে নিয়ে হাসপাতালে যেতে হয় সোহানকে। সেখান থেকে বাসায় ফিরতে ফিরতে রাত হয়ে যায়।

খেলাধুলার পাশাপাশি পারিবারিক এই ব্যস্ততাও উপভোগ করেন বলে বিবিসিকে জানিয়েছে সোহান।

অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে প্রথমবারের মতো কোনো ফরম্যাটে সিরিজ জয় করল টাইগাররা। এর আগে জিম্বাবুয়ে সফরেও দুর্দান্ত খেলেছে বাংলাদেশ। একমাত্র টেস্টে ২২০ রানের জয়, তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজে স্বাগতিকদের হোয়াইটওয়াশ এবং টি-টোয়েন্টিতে ২-১ ব্যবধানে জয়।

সব মিলিয়ে গত জুনের শেষ থেকেই বাংলাদেশ ক্রিকেট জয়ের নিশান উড়িয়েই চলছে।

এরপরও খেলোয়াড়রা বেশ ক্লান্ত। স্বজনদের কাছে ফিরে যাওয়ার প্রচণ্ডরকমের কাতরতা। জিম্বাবুয়ে সফর থেকে শুরু করে এরপর স্বজনদের কাছে ভিড়েনি টাইগাররা। মাঝখানে একটি ঈদও কাটিয়েছেন পরিবার-পরিজনদের ছাড়া।

সেই কাতরতা বোঝা যায় উইকেটরক্ষক নুরুল হাসান সোহানের বক্তব্যে। যা মুহূর্তেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে।

অনেকে বলছেন সোহানের এ কথায় অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট দলকে পাত্তা না দেওয়ার কথা ফুটে উঠেছে। কিন্তু নুরুল হাসান সোহান বলছেন, ‘আমরা যে পরিস্থিতিতে থাকি সেখানে আসল খেলা হয় খেলার মাঠের বাইরে। কোভিড পরিস্থিতি টানা হোটেলে থাকতে হয়, এই সময়টা খুব কঠিন। বাইরে থেকে বোঝা মুশকিল।’

শেয়ার করুন